সোমবার, ১০ মে ২০২১, ০১:৫৩ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তিঃ
আমাদের সিলেট দর্পণ  ২৪ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে , আমাদেরকে আপনাদের পরামর্শ ও মতামত দিতে পারেন news@sylhetdorpon.com এই ই-মেইলে ।
শিরোনাম :
বড়লেখা থেকে ১৮৫০ পিস ইয়াবা সহ ২ মাদক কারবারিকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-৯ মাদ্রাসা ও এতিমখানার নামে ভুয়া রশিদ তৈরি করে চাঁদা আদায়;আটক ১১ প্রতারক ইফতারি ও ঈদের কাপড়ের জেরে ওসমানী নগরে অন্তঃসত্ত্বা নববধূ হত্যা;আটক -২ সুনামগঞ্জে ২৫০ টাকার জন্য বন্ধুর হাতে বন্ধু খুন গ্রামপুলিশ রউফ হত্যা মামলার ২ আসামীকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-৯ মাধবপুরে ২২৪৮ পিস ইয়াবা সহ র‍্যাবের হাতে আটক সুজন জকিগঞ্জ থেকে আরো একজন হেফাজত নেতা গ্রেফতার অনন্য নেত্রী শেখ হাসিনা -সিলভিয়া পারভিন লেনি ৪৬০ পিস ইয়াবা সহ ৩ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‍্যাব-৯ যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফিরছেন সাবেক ছাত্রনেতা মস্তাক আহমেদ
সেলিনা ইয়াসমিনের মৃত্যু নিয়ে রহস্য : এলাকাবাসীর নানা মন্তব্য

সেলিনা ইয়াসমিনের মৃত্যু নিয়ে রহস্য : এলাকাবাসীর নানা মন্তব্য

দর্পণ ডেস্ক : সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সেলিনা ইয়াসমিন। ফেঞ্চুগঞ্জ ঘিলাছড়ার বাসিন্দা সেলিনা ইয়াসমিন গত ২৫শে ডিসেম্বর ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু বরন করেন। তার মৃত্যুর পর আলোচনায় চলে আসে সেলিনা ইয়াসমিমের একটি রহস্যময় ফেইসবুক পোস্ট।

গত ৫ই ডিসেম্বর তিনি তার ফেইসবুক একাউন্টে নিজের ক্ষতির আশংকা করে একটি পোস্ট শেয়ার করেন, তাতে তিনি উল্লেখ করেন তার পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে। তার কোন শারীরিক, মানসিক ও অর্থনৈতিক ক্ষতি হলে তার জন্য ৩জন মানুষ দায়ি থাকবেন। এ ব্যাপারে সবকিছু তার মেয়ের কাছে আছে। উপযুক্ত সময়ে মেয়ে তা প্রকাশ করবে।

এই স্ট্যাটাসের পরে সেলিনা ইয়াসমিন অসুস্থ হয়ে পড়েন,তাকে সিলেট মাউন্ড এডোরা ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, সেলিনা ইয়াসমিন মানসিক চাপে স্ট্রোক করে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকায় নেওয়া হলে সেখানেই চিকিৎসাধিন অবস্থায় তিনি মারা যান। অন্য দিকে তার পোস্টকৃত সেই রহস্যজনক স্ট্যাটাস তোলপাড় শুরু করে জেলা জুড়ে। বিভিন্ন গনমাধ্যমে খবর প্রকাশ হতে থাকে। কিন্তু কারা ঔ ৩জন? আর কি নির্যাতন? কেন নির্যাতন এসব প্রশ্নের কুল কিনারা হয় নি। পুলিশি তদন্ত চললেও তার অগ্রগতি সম্পর্কে জানা যায় নি। অন্য দিকে রহস্যের একমাত্র সাক্ষি সেলিনা ইয়াসমিনের মেয়ে সেজুতি এ ব্যাপারে মুখ না খোলায় পুরো বিষয়টি ঘোলাটে রয়ে যায়। সেজুতি নিরবেই ঢাকায় ফিরে যান। অন্যদিকে ঘিলাছড়ায় সেলিনা ইয়াসমিনের নিকট স্বজন, পারিবারিক লোকদের নিরবতা নানান প্রশ্নের জন্ম দিয়ে যাচ্ছে।

সেই সুযোগে সন্দেহভিত্তিক অভিযোগের তীর ছুটে স্থানীয় একজন আওয়ামিলীগ নেতা একজন উপ প্রকৌশলী সহ ৩জনের দিকে। উপযুক্ত প্রমান না থাকলেও উপজেলা জুড়ে আলোচনার কেন্দ্রতে ঐ ৩জন। চলছে নানা গুঞ্জন। ইতিমধ্যে মূলধারার একটি পত্রিকায় উপজেলা উপ প্রকৌশলী ওয়াজিবুর রহমানের নাম উল্লেখ করে ফেসে যাচ্ছেন বলে সংবাদ প্রকাশ করলে ঘটনার মোড় পালটে যায়। ঐ সংবাদ প্রচারের পরেই উপ-প্রকৌশলী ওয়াজিবুর রহমানও আরেক রহস্যজনক স্ট্যাটাস দেন তার নিজস্ব ফেইসবুক একাউন্টে। রোববার মধ্যরাতে তার স্ট্যাটাসে তিনি লিখেন, তাকে জড়িয়ে একটি কুচক্রী মহল স্বার্থ হাসিলের জন্য বিভিন্ন নিউজ করাচ্ছেন। যা মিথ্যা বানোয়াট। তার কোন ক্ষতি হলে শত্রুদের নাম তার কর্তৃপক্ষ ও প্রশাসনের কাছে থাকবে এবং তার মৃত্যু হলে তা প্রকাশ হবে।

অন্য দিকে প্রয়াত সেলিনা ইয়াসমিনের ক্ষতির আশংকা করে স্ট্যাটাস,তার মৃত্যুর পর উপ প্রকৌশলী ওয়াজিবুর রহমানের ক্ষতি ও মৃত্যুর আশংকার স্ট্যাটাস! দুইটা মিলিয়ে ঘোর রহস্যের জালে বিভ্রান্ত উপজেলার মানুষ। নিজের ক্ষতির আশংকার ব্যাপারে উপ-প্রকোশলী ওয়াজিবুর রহমানের সাথে আলাপ করলে তিনি বলেন, আমার পরিবার ও দপ্তরের সাথে আলাপ করে বিস্তারিত জানাবো।

নিউজটি শেয়ার করুন আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায়..

© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৯ সিলেট দর্পণ ।

কারিগরি সহায়তায়ঃ-ক্রিয়েটিভ জোন আইটি