মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০১:৩৮ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তিঃ
আমাদের সিলেট দর্পণ  ২৪ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে , আমাদেরকে আপনাদের পরামর্শ ও মতামত দিতে পারেন news@sylhetdorpon.com এই ই-মেইলে ।
শিরোনাম :
সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জে দেবরের হাতে ভাবী খুন,র‍্যাবের হাতে আসামি আটক বিয়ানীবাজার উপজেলা কৃষক লীগের বর্ধিত সভা সম্পন্ন বিয়ানীবাজার উপজেলা কৃষক লীগের সম্মেলন ৮ জুন সিলেটের আখালিয়ায় ট্রাক চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী যুবক নিহত হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করে পালানো পি কে হালদার পশ্চিমবঙ্গে গ্রেফতার ঢাকা কলেজ ও আইডিয়াল কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্যে সংঘর্ষ আজ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের সভা,নির্ধারিত হবে নৌকার মাঝি সিলেট জকিগঞ্জ রোডের কালিগঞ্জ জান্নাত পার্কের সামনে সড়ক দুর্ঘটনায় ১ জন নিহত শেওলা পল্লী বিদ্যুৎ এলাকায় মারাত্মক সড়ক দুর্ঘটনায় ২৪ বিজিবি সদস্য আহত শ্রীলঙ্কার ভয়াবহ পরিস্থিতি,সহিংসতাকারীদের দেখা মাত্র গুলির নির্দেশ
গোল্ডেন মনিরের জমজম টাওয়ারকে ২১ লাখ টাকা জরিমানা

গোল্ডেন মনিরের জমজম টাওয়ারকে ২১ লাখ টাকা জরিমানা

দর্পণ ডেস্ক : নকশাবহির্ভূত স্থাপনা নির্মাণ করায় রাজধানীর উত্তরার বহুতল বাণিজ্যিক ভবন ‘জমজম টাওয়ার’ কর্তৃপক্ষকে ২১ লাখ জরিমানা করেছেন রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (রাজউক) ভ্রাম্যমাণ আদালত। বহুতল এ ভবনের মালিক মনির হোসেন ওরফে ‘গোল্ডেন মনির’।

রোববার বিকাল ৩টার পর রাজউকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জেসমিন আক্তার এ জরিমানা করেন।

এর আগে দুপুর ১২টার পর জমজম টাওয়ারের নকশাবহির্ভূত অংশ উচ্ছেদে অভিযান শুরু করে রাজউক।

টাওয়ারের দক্ষিণ অংশে উত্তরা-সোনারগাঁ জনপথের একাংশ দখল করে তৈরি করা ভবনের অতিরিক্ত অংশ ও সৌন্দর্যমণ্ডিত বিভিন্ন নকশা ও স্থাপনা ভেঙে ফেলা হয়।

তবে আজকের মতো অভিযান স্থগিত করা হয়েছে। ভবনের ভেতরেও নকশাবহির্ভূত কাজ করা হয়েছে। সেগুলোও ভাঙা হবে।

রাজউকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জেসমিন আক্তার জানান, বৈদ্যুতিক জটিলতাসহ আরও কিছু কারণে আজ অভিযান স্থগিত করা হয়েছে। ভবনের ভেতরেও নকশা অনুয়ায়ী কাজ করা হয়নি। সেগুলোও পরে ভাঙা হবে।

মেরুল বাড্ডার ডিআইটি প্রজেক্টে মনিরের বাসায় গত ২০ নভেম্বর রাতে অভিযান চালায় র‌্যাব। রাতভর অভিযান চালানোর পর বিপুল অর্থ, অস্ত্র ও মদসহ তাকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর ২২ নভেম্বর সকালে রাজধানীর বাড্ডা থানায় র‍্যাব বাদী হয়ে গোল্ডেন মনিরের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন, অস্ত্র ও বিশেষ ক্ষমতা আইনে এই তিনটি মামলা দায়ের করে।

গোল্ডেন মনিরকে গ্রেফতারের পর তার হেফাজত থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, কয়েক রাউন্ড গুলি, বিদেশি মদ এবং প্রায় ১০টি দেশের বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা (যা প্রায় বাংলাদেশি টাকায় ৯ লাখ টাকা) উদ্ধার করা হয়। তার বাসা থেকে আট কেজি স্বর্ণ ও নগদ এক কোটি নয় লাখ টাকা জব্দ করা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায়..

© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৯ সিলেট দর্পণ ।

কারিগরি সহায়তায়ঃ-ক্রিয়েটিভ জোন আইটি