শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০৫:৪৪ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তিঃ
আমাদের সিলেট দর্পণ  ২৪ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে , আমাদেরকে আপনাদের পরামর্শ ও মতামত দিতে পারেন news@sylhetdorpon.com এই ই-মেইলে ।
শিরোনাম :
কানাইঘাট থেকে ইয়াবা সহ এক ভারতীয় নাগরিককে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব বিয়ানীবাজারে সাড়ে ৩ কেজি গাঁজা সহ ২জনকে আটক করেছে থানা পুলিশ গোয়াইনঘাটে মা মেয়ে ছেলে সহ ৩ জনের গলাকাটা লাশ উদ্ধার জকিগঞ্জে মিলেছে গ্যাসের সন্ধান সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান- এর ১ম মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে ওয়েব অব হিউম্যানিটি এল্যায়েন্স সিলেট এর শ্রদ্ধাঞ্জলী অর্পণ ও দোয়া মাহফিল ১৪ বছর পর ধর্ষণ মামলার এক পলাতক আসামিকে গ্রেফতার করেছে বিয়ানীবাজার থানা পুলিশ বাংলাদেশ ভারত সংস্কৃতি মৈত্রী ফ্রন্ট এর ভিডিও কনফারেন্স সভা সম্পন্ন হয়েছে মধ্যরাতে বিয়ানীবাজারে অটোরিকশার ধাক্কায় এক যুবক নিহত বিয়ানীবাজার থেকেই কিশোরী উদ্ধার,অপহরণকারী যুবক গ্রেফতার মাদক মামলার সাজা প্রাপ্ত এক আসামিকে গ্রেফতার করেছে বিয়ানীবাজার থানা পুলিশ
মাধবপুরে ৭৩৪ কি:মি. সড়কের ৫৩০ কি:মি বেহাল দশা

মাধবপুরে ৭৩৪ কি:মি. সড়কের ৫৩০ কি:মি বেহাল দশা

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি : হবিগঞ্জের মাধবপুরে যোগযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন না হওয়ায় দূর্ভোগ নিয়ে চলছে প্রতিটি গ্রামের জনগন।
সিলেট বিভাগের প্রবেশদ্বার ঢাকা সিলেট মহাসড়ক সংলগ্ন অত্র উপজেলাটিতে কৃষি ও শিল্পকারখানায় উন্নয়ন হলেও অনুন্নত রয়েছে জনগনের চলাচলের রাস্তাঘাট ! ২৯৫ বর্গ কিলোমিটারের উপজেলাতে প্রায় সাড়ে ৩ লাখ জনগনের বসবাস।
স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগ সূত্রে জানা গেছে ২৮৮টি গ্রাম সমৃদ্ধ এ উপজেলাতে মোট ৭শ ৩৪ কিলোমিটার রাস্তার মধ্যে পাকা রাস্তা রয়েছে মাত্র ১৯৬কি:মি।
গ্রামীন রাস্তা মধ্যে সিমেন্ট ও ইটের খোয়া (সিসি) এবং রড, সিমেন্ট ও ইটের খোয়া (আরসিসি) দ্বারা এ পর্যন্ত পাকা হয়েছে ৩কি:মি। সম্পূর্ন রুপে ৫শ ৩০ কি:মিটার মাটির কাচা রাস্তা দিয়ে আজো চলতে হচ্ছে মাধবপুর বাসীকে।
দীর্ঘদিন পূর্বে ইট সলিং হওয়া বিভিন্ন ইউনিয়নের ৫ কিলোমিটার রাস্তা গত বন্যার পানিতে প্লাবিত হয়ে অধিকাংশ রাস্তাই ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে মানুষের চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।
প্রতিটি ইউনিয়নের জনগন যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন না হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করছেন। ১১টি ইউনিয়নের ১৮১টি মৌজার এ উপজেলাতে ৩০৯টি রাস্তা পাকা করনের জন্য স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর(এলজিইডি)র তালিকাভূক্ত হলেও অদ্যবদি বাস্তবে রুপ না নেওয়ায় সামাজিক যোগযোগ মাধ্যমসহ সর্বত্র জনগনকে ক্ষোভ ঝাড়তে দেখা যাচ্ছে।
নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের নির্বাচনী প্রতিশ্রæতি নিয়েও চলছে সমালোচনা। যোগাযোগ ব্যবস্থার দুর্ভোগ লাঘব হবে কবে সেই প্রশ্ন জনগনের।
উপজেলার বৃহৎ অংশ গ্রামীন সড়ক কাঁচা থাকার কথা স্বীকার করে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের প্রকৌশলী মোঃ জুলফিকার হক চৌধুরী বলেন-প্রধান প্রকৌশলীর কার্যালয় থেকে চাহিদামত বিভিন্ন সড়কের বর্ণনা ও পাকা করনের খরচের হিসাব পাঠানো হচ্ছে। অনুমোদ ও অর্থ বরাদ্দ দেওয়া হলেই পাকা করতে কার্যক্রম শুরু করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায়..

© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৯ সিলেট দর্পণ ।

কারিগরি সহায়তায়ঃ-ক্রিয়েটিভ জোন আইটি