মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১:১৩ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তিঃ
আমাদের সিলেট দর্পণ  ২৪ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে , আমাদেরকে আপনাদের পরামর্শ ও মতামত দিতে পারেন news@sylhetdorpon.com এই ই-মেইলে ।
হবিগঞ্জ শহরে নকল সোনা বিক্রেতা জনতার হাতে আটক

হবিগঞ্জ শহরে নকল সোনা বিক্রেতা জনতার হাতে আটক

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি : হবিগঞ্জ শহরের শায়েস্তানগর এলাকায় হকার্স মার্কেট এলাকা অপরাধীদের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়েছে। প্রতিদিনই এখানে কোন না কোন অপরাধ সংঘটিত হচ্ছে। এক শ্রেণীর অপরাধীরা হকার্স মার্কেটের ব্যবসাকে কাজে লাগিয়ে এখানে অপরাধ কর্মকান্ড সংঘটিত হচ্ছে।

এমনকি মার্কেটের দোকান বেঁচাকেনা নিয়েও প্রায়ই সংঘর্ষসহ বিভিন্ন অপরাধমূলক কাজ হচ্ছে। এ নিয়ে এলাকাবাসি দীর্ঘদিন ক্ষোভ প্রকাশ করে আসলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে নেয়া হচ্ছে না কোন ব্যবস্থা।

সোমবার সকালে ওই এলাকায় এক নারীর যাত্রীর কাছে নকল সোনা বিক্রিকালে সাহাবদ্দিন (৩৫) জনতা আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

সূত্রে জানান, সোমবার সকালে জৈনক এক নারী রিকশা যোগে শায়েস্তানগর এলাকার সিএনজি স্ট্যান্ডে থেকে চৌধুরীবাজার যাওয়ার সময় রিকশা চালক সাহাবউদ্দিন তাকে যাত্রী হিসেবে রিকশায় তুলে।

কিছুক্ষণ যাবার পর সে রিকশা থামিয়ে রাস্তা থেকে একটি পুটলা আকৃতির জিনিস তুলে তাকে দেখায়। পুটলার ভেতরে একটি চিঠি তাকে পড়তে দেয়। চিঠিটি আমি তাকে পড়ে শুনানোর সময় দেখতে পাই এতে লেখা রয়েছে, প্রিয় সুবোধ বাবু, আদাব নিবেন। আমি বিদেশ থেকে আমার বোনের বিবাহের জন্য ২ ভরি ওজনের একটি স্বর্ণের বিস্কুট পাঠালাম। এটি ভাঙ্গিয়ে আপনি হাতের বালা, কানের দুল বানাইয়া দেবেন। তখন সাহাবউদ্দিনসহ ৩/৪ জন তার হাতে থাকা পুটলার ভেতরে থাকা ধাতব বস্তুকে আমার নিকট স্বর্ণ বলে পরিচয় দিয়ে কেনার কথা বলে। আমি নিকটস্থ সোনার দোকানে যাচাই বাছাই করার কথা বললে সে আমাকে রিকশা থেকে নামিয়ে দিয়ে যাবে না বলে জানায় এবং বলে কম দামে স্বর্ণটি কিনতে।

এ সময় তারা জোরপূর্বক আমার কাছ থেকে মোবাইল ও টাকা নিয়ে যায়। তখন তার চিৎকারে লোকজন এগিয়ে এসে সাহাবউদ্দিনকে আটক করে গণধোলাই দিয়ে সদর থানায় নিয়ে সোপর্দ করে। এ সময় তার সহযোগিরা পালিয়ে যায়।

আটক সাহাবউদ্দিন হবিগঞ্জ সদর উপজেলা তেঘরিযা গ্রামের সত্তার মিয়ার পুত্র।

নিউজটি শেয়ার করুন আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায়..

© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৯ সিলেট দর্পণ ।

কারিগরি সহায়তায়ঃ-ওরাকল আইটি